A card magic - learn it now



 তাসের ভুত

মঞ্চে দাঁড়িয়ে আপনি দর্শকদের উদ্দেশ্যে বলতে শুরু করুন—সমবেত দর্শকমণ্ডলী! আপানারা কেউ কখনও কোনাে দিন ভুত দেখেছেন কিনা জানি না। অবশ্য আমিও এর আগে কখনও ভূতটুত দেখিনি। তবে ভূতকে ভয় পায় না—এমন লােক খুব কমই আছেন। আমি আমার কথাই বলি--আমিও ভুতের নাম শুনলেই খুব ভয় পেতাম, ভূতকে চোখে দেখা তাে দূরের কথা। তবে এখন কিন্তু আমি ভূতকে মােটেই ভয় নাই না। কারণ যাদুবিদ্যা শেখার পর।

 আমি যাদুবিদ্যার দ্বারা একটা ভূতকে বশ করে রেখেছি। আমি যা বলব, আমার কথায় ভূতটা তাই করতে বাধ্য হবে। ভূতটা যে আমার কতখানি বাধ্য, সেটাই আমি তাসের খেলার মধ্যে দিয়ে আপনাদের দেখাব; আপনারা কিন্তু ভয় পাবেন না। কারণ আমার ইচ্ছার বিরুদ্ধে ভূতটা কোনাে কাজই করবে না। এই বলে এক প্যাকেট তাস নিয়ে। একজন দর্শককে ডেকে পূর্বোক্ত খেলায় বর্ণিত পদ্ধতিতে চারখানি তাস টানতে বলুন এবং পাশাপাশি দর্শকদের মধ্যে একটি করে ভাগ করে নিতে বলুন।

দর্শকটির তাস ভাগ করা হলে আপনি বলুন---আমার এই তাসের প্যাকেটের মধ্যে থেকে আপনারা যে চারটি তাস নিয়েছেন, তা আমি দেখিনি এবং আমি জানিও না যে, আপনারা কি কি তাস নিয়েছেন। তবে আমার এই পােষা তাসের ভূতটি কিন্তু আমাকে বলে দিতে পারবে আপনাদের কাছে কি কি তাস আছে।

এই বলে আপনি একটি বিচিত্র ধরণের ভৌতিক আকারের জোকার দর্শকদের। দেখিয়ে বলুন—এটাই আমার সেই পােষা ভূত। যাদুবিদ্যা বলে একে জাগিয়ে তুললেই। আপনাদের হাতের তাসগুলির নাম বলে দিতে সাহায্য করবে। এবার ওই জোকারটিকে বামহাতে ধরে ডানহাতে যাদুদণ্ডটি নিয়ে মন্ত্র পড়ার ছলে জোকারটির ওপর ঘােরাতে থাকুন এবং বলন—তাসের ভূত! আমি তােমাকে বলছি তুমি জাগাে ।

এবার দর্শকদের বলুন—আমার পােষা তাসের ভূত জেগেছে। এখন আমি আপনাদের ভূতের কারসাজি দেখাব। এই বলে আপনি জিজ্ঞাসা করুন—আমার প্রিয় পােষা ভূত! উপস্থিত দর্শকবৃন্দের মধ্যে থেকে চারজন চারখানি তাস প্যাকেটের মধ্যে থেকে নিয়েছে; তুমি আমাকে এক এক করে বল তাদের কাছে কি কি তাস আছে। এবার আপনি তাসটি অর্থাৎ জোকারটি কানের কাছে চেপে ধরুন। যেন ভূতটি আপনাকে কানে কানে কিছু বলছে আর আপনিও টেলিফোনে কথা বলার মত করে । তার সঙ্গে কথা বলুন। যেমন—দর্শক চারজন যে চারটি তাস ভাগ করে নিয়েছেন, সেগুলি হল—চিড়িতনের টেক্কা, রুহিতনের বিবি, হরতনের পাঁচ ও ইস্কাবনের সাত। আপনি বলবেন—হ্যা বল, কি বললে? ও আচ্ছা বুঝেছি, চিড়িতনের টেক্কা।। এবার দর্শকদের বলুন—চিড়িতনের টেক্কা যার কাছে আছে, তিনি হাত তুলুন। যেই দর্শকটি হাত তুলবে, তারপর আবার জিজ্ঞাসা করুন—পরের তাসটি কি, তার নাম বল। রুহিতনের বিবি?

আবার দর্শকদের উদ্দেশ্যে বলুন---রুহিতনের বিবি যাঁর কাছে আছে, তিনি হাত তুলুন। দ্বিতীয় হাত তােলার পর পুনরায় ওই জোকারটিকে কানের কাছে এনে জিজ্ঞাসা করুন এবার তৃতীয় তাসটির নাম বল। এঁ? হরতনের পাঁচ ? ঠিক আছে। 

পুনরায় দর্শকদের উদ্দেশ্যে বলুন-হরতনের পাঁচ যার কাছে আছে, তিনি হাত তুলুন। দর্শকটি হাত তুললে অনুরূপ কায়দায় আবার জিজ্ঞাসা করুন এবং বলুন--কি। বললে ? চার নম্বর তাস ইস্কাবনের সাত ? 

পূর্বোক্ত প্রকারে আবার বলুন—ইস্কাবনের সাত যার কাছে আছে, তিনি হাত তুলুন। এইভাবে তাস চারটির নাম বলে দেবার ফলে কোন দর্শক ন অবাক হবেন। সুতরাং সকলেই বিস্ময়ে হাততালি দিয়ে উঠবেন। * এবার খেলাটির কৌশল সম্বন্ধে আলােচনা করা যাক। এই খেলার যাবতীয় কৌশল আগের খেলায় উল্লিখিত তাসের প্যাকেটের মত।

এখানে পরিষ্কার করেই উল্লেখ করছি। দোকান থেকে তের প্যাকেট তাস কিনে এনে তার মধ্যে থেকে তেরটি চিড়িতনেরা টেক্কা, তেরটি রুহিতনের বিবি, তেরটি হরতনের পাঁচ এবং তেরটি ইস্কাবনের সাত বার করে নিন। অবশ্য এখানে যে তাসগুলির কথা উল্লেখ করা হয়েছে, সেগুলিই আপনি কেবল ব্যবহার করবেন—এমন কোনাে কথা নেই। আপনি আপনার পছন্দ। মত চার রকমের তেরটি করে তাস বার করে নিতে পারেন।

 এবার ওই তাসগুলি একটির পর একটি রাখুন। যেমন—প্রথমে চিড়িতনের টেক্কা, তারপর রুহিতনের বিবি তারপর হরতনের পাঁচ এবং শেষে ইস্কাবনের সাত। এইভাবে - পরের পর তাস সাজালে ৪x১৩ অর্থাৎ ৫২টি তাসের একটি প্যাকেট তৈরী হয়ে যাবে।

 এই কৌশলটি কিন্তু দর্শকরা কেউই জানতে পারবেন না। এইরকম একটা প্যাকেটের মধ্যে থেকে দর্শকরা যেখান থেকেই চারটি তাস টানুন না কেন, সেগুলি আপনার নির্দিষ্ট তাস হতে রাধ্য। সুতরাং তাস চারটি যে কি কি, আপনি জানলেও দর্শকরা মােটেই তা বুঝতে পারবেন না। তবুও আপনাকে দর্শকদের উদ্দেশ্যে বলতে হবে- যে চারটি তাস আপনাদের কাছে আছে, তা আমি জানি না এবং আমি না জানলেও আমার পােষা এই তাসের ভূতটি সবই জানে। সে ওই তাসের নামগুলি আমাকে বলে দেবে। এই বলে ভৌতিক চেহারার জোকারটি দর্শকদের দেখিয়ে দিন। তাসের আকৃতির একটি কার্ডের ওপর এই বিশেষ ধরণের ভৌতিক জোকারটি আর্টস্টকে দিয়ে আঁকিয়ে নিতে হবে।

এবার ওই জোকারটি বাম হাতে ধরে ডান হাতে মন্ত্র পড়ার ছলে যাদুদণ্ড ঘুরিয়ে ভূতটিকে জাগিয়ে তােলার ভান করবেন। এরপর ওই ভূতটিকে কানের কাছে এনে এক এক করে তাসের নাম জিজ্ঞেস করলে ভূতটি যেন কানে কানে আপনাকে সব বলে দিচ্ছে; আপনিও কথাগুলি বলবেন যেমন মানুষ টেলিফোনে কথা বলে, সেই পদ্ধতিতে। এইভাবে এক এক করে তাসের নাম উল্লেখ করে আপনি দর্শকদের জিজ্ঞেস করুন তাসটি কার কাছে আছে এবং তাকে হাত তুলতে বলুন। ভালভাবে অভ্যাস করার পর এইভাবে খেলাটি দেখাতে পারলে দর্শকদের কাছে। খুবই মনােমুগ্ধকর এবং আনন্দদায়ক হবে। এই খেলাটি ঘরােয়া অনুষ্ঠানে দেখতে পারলেও আসর জমিয়ে রাখা যায়। খেলাটি কিন্তু ফোর্সিং (Forcing) পদ্ধতিতেও দেখানাে যেতে পারে। যেমন- পূর্বোক্ত চার রকমের চারটি তাস বার করে একেবারে প্যাকেটের সামনে রাখুন। মথে দাঁড়িয়ে বক্তৃতা দেবার সময় যখন আপনি তাসগুলি উপুড় করা অবস্থায় সাফল। করবেন, তখন তাসগুলি স্বাভাবিকভাবেই নিচের দিকে থাকবে। আপনি কিন্তু এমন কৌশলে সাফ করবেন, যাতে তাসগুলি অন্যান্য তাসের সঙ্গে মিশে না যায়।। এরপর দর্শকদের হাতে যখন তাস দেবেন তখন সুকৌশলে সাফ করার ছলে তাসলি মাঝের দিকে নিয়ে আসুন। মাঝের দিকে তাসগুলি এসে গেলে হাতের কড়ে আঙুল দিয়ে তাসগুলির কোনায় চেপে রাখুন, যাতে আপনার বুঝতে অসুবিধা না হয়।

ওই তাসগুলিই আপনার নির্দিষ্ট তাস। এবার ওই মাঝামাঝি জায়গা থেকে তাস কেটে একজন দর্শককে ফোর্সিং পদ্ধতিতে চারটি তাস দিয়ে দিন এবং চারজনকে ভাগ করে নিতে বলুন। তারা তাস ভাগ করে নেবার পর পূর্বোক্ত নিয়মে খেলাটি দেখাতে থাকুন।

Post a Comment

0 Comments